সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ১২:১৮ অপরাহ্ন
টপ নিউজ
বজ্রপাতে চাচা-ভাতিজার মৃত্যু চাল নিয়ে বাড়ী ফিরা হল না মসজিদের মোয়াজ্জিন রুহুল কাদেরের চকরিয়ায় ৪ মামলায় পরোয়ানাভুক্ত আসামী জমিরকে পুলিশ থেকে ছিনিয়ে নিয়েছে সন্ত্রাসীরা শপথ নিলেন চকরিয়া পৌরসভার মেয়র ও কাউন্সিলরবৃন্দ চকরিয়ায় সর্ববৃহৎ নারী উদ্যোক্তা সংগঠন হস্তশিল্প পরিবারের বর্ষপূর্তি পালিত চকরিয়ায় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে প্রায় ১৫হাজার টিকা প্রদানের ঘোষণা পেকুয়ায় লোকালয়ে আসা ১০ ফুট লম্বা অজগর উদ্ধার কবি মানিক বৈরাগীর উদ্যোগে কক্সবাজারের দুইটি পাঠাগার পেয়েছে অসংখ্য বই চিত্রশিল্পী সরওয়ার হত্যার বিচারের দাবীতে মানবন্ধন সক্রিয় চুর সিন্ডিকেটঃ আতঙ্কে খুটাখালীবাসী

সিয়াম

Reporter Name
  • আপডেটের সময় : রবিবার, ৯ মে, ২০২১
  • ১৯০ দেখুন

 

 

‘সিয়াম’এর আভিধানিক অর্থ হচ্ছে বিরত থাকা।সুবহে সাদেক থেকে সুর্যাস্ত পর্যন্ত যাবতীয় খাওয়া দাওয়া ও ইসলামি শরিয়তে নিষিদ্ধ কাজ থেকে সম্পুর্ন বিরত থাকার নামই সিয়াম বা রোজা।পক্ষান্তরে রোজা একটি আবশ্যক ফরজ ইবাদাত, না মানলে কবিরাহ গোনাহ হবে অস্বীকার করলে ঈমান চলে যাবে। আসলে আমরা কি সিয়াম বা রোজাকে সেই ভাবে গ্রহন করেছি? বা গ্রহন করতে পেরেছি?আমাদের বেশীর ভাগ মানুষের ধারণা সকাল থেকে না খেয়ে বিকালে খাওয়ার নাম রোজা।আসলে রোজা কি তাই? নিশ্চয় নয়।আমরা রোজা বা সিয়ামের মুল উদ্দেশ্য কে সম্পুর্ন বাদ দিয়ে সারাদিন উপোস থেকে নিজের ইচ্ছে মতো নিজের নফ্স কে অনিয়ন্ত্রিত করে মনের মতো নানা রকম অবৈধ সুযোগ সুবিধা ভোগ করে দিন পার করে মনের আত্মতুষ্টির ঢেকুর তুলে মনে করি আমার রোজা আদায় হয়ে গেছে।আপসোস এসব গোমরাহিতে রত বান্দাদের জন্য।যেমন আমি একজন ব্যবসায়ী আমার কাজ হচ্ছে হালাল ব্যবসার মাধ্যমে রোজী রোজগার করে আমার পারবারিক চাহিদা মিটিয়ে আল্লাহর ইবাদত করা।কেননা মহান আল্লাহ মানুষকে দুনিয়ায় পাঠিয়েছেন এক মাত্র তারই এবাদত করার জন্য।আর ইবাদতের জন্য আল্লাহতায়ালা যে হায়াতঠুকুন দিয়েছেন সেই সময় টুকু সুস্থ ও সুন্দর ভাবে বেঁচে থাকা দরকার।এই বেঁচে থাকার জন্যই মানুষ ব্যবসা চাকরী শ্রমীক কুলি মজুরী করে যাচ্ছেন।মুল উদ্দেশ্য হচ্ছে ইবাদত আর যাবতীয় কাজ কর্ম হচ্ছে ইবাদাতের জন্য বেঁচে থাকার জন্য।কোন মানুষ সারাজীবন ব্যবসা বানিজ্য চাকরী ইত্যাদিতে মশগুল থেকে অনেক রোজগার বা অঠেল সম্পদের মালিক হলো কিন্ত আল্লাহ কে সন্তুষ্ট বা তার ইবাদত বন্দেগিতে গাফেল ছিলো তার সমস্ত অর্জন ই ব্যর্থ।আর ইবাদত কবুল হওয়ার প্রথম শর্তই হচ্ছে হালাল রোজগার। আপনি রোজা রাখেন,কিন্ত আপনি যে সেহরি বা ইফতার পান করেন সেই ইনকাম অবৈধ ওঅসাধু উপায়ে রোজগার করেছেন কিনা! যদি আপনি অবৈধ ইনকাম থেকে বিরত থাকেননি তাহলে আপনার সিয়াম বা রোজার হক বা শর্ত আদায় হবে না। অর্থাৎ আপনি সঠিক সিয়াম (বিরত) পালন করেননি,সুতারং আপনার রোজা হয়নি। অনুরূপ আপনি চাকরি ব্যবসা বানিজ্যে সর্বক্ষেত্রে মানুষকে ঠকিয়ে সুদ ঘোষ অবৈধ ইনকাম করে সিয়াম পালন করছেন,অনেকে আবার রোজা উপলক্ষে মানুষের দৈনন্দিন নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পত্রের ইচ্ছে মাপিক দাম বাড়িয়ে বা অতি মুনাফা করতঃবা রোজার বকশিসের নামে জবরদস্তি করে মানুষের ক্ষতি করে সিয়াম পালন করেছেন,সিয়ামের পরিভাষায় আপনি আদোও রোজা পালনকারী নন।শুধু রোজা নয় যাবতীয় ইবাদত ও আপনার সহি সুদ্ধ হয়নি।আল্লাহর কাছে এ ধরনের ইবাদাত গ্রহন যোগ্য নয়।এভাবে প্রতিবেশীর প্রতি অসাদাচারন প্রতিবেশীর হক অনাদায় অর্থাত সব ধরনের আর্থিক মানসিক শারীরিক যাবতীয় জুলুম অত্যাচার থেকে বিরত না থেকে অব্যাহতভাবে মানুষের ক্ষতিসাধন করে আপনি যতই রোজা রাখেন বা ফরজ ইবাদত পালন করেন মহান আল্লাহর নিকট এধরণের ইবাদত কবুল হবে না।আসুন আমরা পরিপূর্ণ ইসলামে দাখিল হয়।সুবিধা জনক ইসলাম,সুবিধাজনক ইবাদত,সুবিধাজনক মুসলমান না হয়ে আল্লাহ যেন মৃত্যু না দেন এই কামনা করি।অন্যতায় সব দুনিয়াবী অর্জন ইহকাল ও পরকালের জন্য মারাত্মক অসুবিধার কারন হয়ে দাঁড়াবে।পবিত্র কোরআনের৷ ভাষায়-“হে মুমিনগণ তোমাদের উপর রোজা ফরজ করা হয়েছে।যেমন ফরজ করা হয়েছিল তোমাদের পুর্ববর্তীদের উপর। যেন তোমরা তাক্বওয়া (আল্লাহ ভীতি)অর্জন করো”(সুরা আল বাক্বারা,আয়াত নম্বর ১৮৩) সর্বক্ষেত্রে আমাদের আল্লাহ ভীতি অর্জন ছাড়া ইহকাল ও পরকালে সফলকাম সম্ভব নয়। আমীন।

#মোঃফোরকানউদ্দিন,চকরিয়া।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর

Design & Develop BY Coder Boss
© Copyright 2019 All rights reserved BBC Morning
Design & Develop BY Coder Boss
themesba-lates1749691102